দ্রুত ত্বক ফর্সা করার সবচেয়ে সহজ ও কার্যকরী ফর্মুলা

159
দ্রুত ত্বক ফর্সা

দ্রুত ত্বক ফর্সা করতে কিন্তু সকলেই চায়। প্রত্যেকেই চায় তার অসুন্দর কালো ত্বক টা যেন খুব দ্রুত ফর্সা হয়ে যায়। এ বিষয়ে সবচেয়ে সহজ ও কার্যকরী ফর্মুলাটি এখানে আলোচনা করা হয়েছে। আপনারা টাইটেলটি পড়েই হয়ত অবাক হয়ে গেছেন তাই না? হ্যাঁ এটি আসলেই সত্য ও অধিক কার্যকরী একটি সহজ পদ্ধতি বা ফর্মুলা।

ধরুন আপনি কিছুক্ষণের মধ্যেই একটি অনুষ্ঠানে যাবেন। হাতে সময়ও খুব কম। তাই ভাবছেন এই মুহূর্তে আপনার কালো মলিন হয়ে থাকা দাগে ভরা চেহারাটাকে কিভাবে দ্রুত সুন্দর ও উজ্জ্বল ফর্সা আর glow করাবেন। আর এজন্য আপনি গেছেন বিউটি পার্লারে মেকআপ করে দ্রুত আপনার ত্বক ফর্সা করার জন্য।

তখন পার্লারের বিউটিশিয়ানরা কিন্তু আপনাকে এই ফর্মুলাটি আপনার ত্বকে এপ্লাই করে দিয়ে দিবে। বেশীরভাগ বিউটি এক্সপার্টদের মতে দ্রুত ত্বক ফর্সা করে ফেলার জন্য এটাই একমাত্র উত্তম আর ন্যাচারাল একটা কার্যকর পদ্ধতি।

আমি আপনাদেরকে প্রাকৃতিক ভাবে তৈরি করা যে উপাদানটির কথা বলব সেটা হল বেসন। শুধুমাত্র বেসনই ইন্সট্যান্টলি ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি ও ত্বকের দাগ তুলে ত্বকের সৌন্দর্য বাড়াতে এতটাই ভূমিকা রাখে যে ত্বকে বা মুখে আর অন্য কোন উপাদান ব্যবহারের প্রয়োজন পড়ে না।

ইন্সট্যান্টলি আপনি এর উপকারিতা বা রেজাল্ট দেখতে পাবেন। বেসনের তৈরি ফেইসপ্যাক মাত্র পনের মিনিটের মধ্যে আপনার ত্বককে glow আর ফর্সা করে তুলবে। এছাড়া এটি ব্যাবহারের ফলে আপনার ত্বক থেকে রোদে পোড়া দাগও দূর করে দিবে সহজেই। বেসন ত্বকের জন্য খুবই উপকারী একটি উপাদান।

বেসনের চমৎকার একটি বৈশিষ্ট্য হলো যে ইহা সকল ধরনের ত্বকের জন্যই উপযুক্ত। এটি ব্যবহারে ত্বকের কোন ক্ষতি বা সাইড ইফেক্ট হয় না। হোক সেটা অয়েলি স্কিন অথবা ড্রাই স্কিন। বিশেষকরে একমাত্র বেসন কে আপনার ত্বকের যত্নে ফেইস মাস্ক বানিয়ে নিয়মিত ব্যবহার করলে আপনি পরবর্তীতে আর অন্য কিছু ব্যবহারের কথা চিন্তাই করবেন না।

তাহলে চলুন জেনে নেই দ্রুত ত্বক ফর্সা করতে বেসন দিয়ে কিভাবে এই ফেইস মাস্কটি আপনি ঘরে বসেই বানিয়ে নিবেন।

প্রস্তুত প্রণালীঃ দ্রুত ত্বক ফর্সা করার ফেইস মাস্কটি তৈরি করতে প্রথমেই একটি পাত্রে দুই চামুচ বেসন নিয়ে তার মধ্যে এক চামুচ লেবুর রস ও এক চামুচ খাঁটি মধু মিশিয়ে ভালো করে নেড়ে নিন। তারপর মিশ্রণটির মধ্যে সামান্য পরিমান হলুদ গুঁড়া ছিটিয়ে আবার একটু নেড়ে দিন।

সবগুলো উপাদান ভালো করে মিক্স করা শেষে দেড় চামুচ কাঁচা অবস্থায় থাকা খাঁটি দুধ মিশিয়ে নিন। আপনি চাইলে হ্যান্ড বিটার দিয়ে ভাল করে মিক্স করে নিতে পারেন। এতে মিশ্রণটি খুম মিহি হয়ে যাবে। ব্যাস এভাবেই তৈরি করা হয়ে গেল দ্রুত আপনার ত্বকের উজ্জ্বল ফর্সা ও glow করার জন্য ফেইস মাস্ক বা লোশন।

ব্যবহার প্রণালীঃ আপনি এই মিশ্রণটি প্রত্যেকদিন একটি নির্দিষ্ট সময়ে যেমন গোসলে যাওয়ার আধাঘন্টা আগে বা রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে আপনার মুখে পনের মিনিটের জন্য লাগিয়ে রাখতে পারেন। তারপর পরিষ্কার পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এটি আপনি চাইলে ঘর থেকে বাইরে যাওয়ার আধা ঘণ্টা আগেও আপনার ত্বকে ব্যবহার করে বাইরে যেতে পারেন। মিশ্রণটি ব্যাবহারের পূর্বে মুখ ভালকরে ধুয়ে নিবেন।

যেহেতু ইহা দ্রুত আর ইন্সট্যান্টলি ত্বককে ফর্সা করে। তাই কোন পার্টিতে যাবার আগে এই ফেসিয়ালটিই হতে পারে আপনার দ্রুত ত্বক ফর্সা করার সবচেয়ে পারফেক্ট একটি ফেসিয়াল। এই মিশ্রণটি আপনি হাতে পায়ে সহ সমস্ত শরীরেও এপ্লাই করতে পারেন। আপনার শরীর থেকে সমস্ত দাগ ছোপ দূর করতে এই মিশ্রণটি নিয়মিত ব্যবহার করুন।

দ্রুত ত্বক ফর্সা করা এবং ত্বকের যত্নে কিছু পরামর্শঃ

আপনার ত্বক শুধু ফর্সা আর উজ্জ্বল করলেই হবে না। এই সৌন্দর্যকে ধরে রাখতে চাই সঠিক যত্ন। কারন সঠিক যত্নের অভাবে সমস্ত কিছুই নষ্ট হয়ে যায়। তাই সবসময় আপনার মুখের যত্ন নিন। বাহির থেকে আসা মাত্রই মুখ ফেসিয়াল করে মুখ ধুয়ে আপনার ত্বকের ধরন বুঝে লোশন লাগিয়ে নিন।

পর্যাপ্ত পানি পান করা এবং ঘুম ত্বক সুন্দর রাখতে খুবই জরুরী। গরমে বাইরে গেলে ছাতা ব্যাবহার করুন। প্রয়োজনে হিজাব ব্যাবহার করুন। এতে আপনার মাথার চুলও ভাল থাকবে। চোখে সানগ্লাস পরার অভ্যাস করুন।
পূর্ববর্তী আর্টিকেলMeghna Life Insurance Company তে করা আপনার Policy Status দেখুন
পরবর্তী আর্টিকেলঅনলাইনে জন্ম নিবন্ধন আবেদন করুন ঘরে বসে

একটি মন্তব্য করুন

এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন
অনুগ্রহপূর্বক আপনার নাম লিখুন