করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন কিভাবে করবেন জেনে নিন

193
করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন
Google search engine

করনা (কোভিড-১৯) ভ্যাকসিন নিবন্ধন এর কথা ভাবছেন ? অথচ কিভাবে করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন বা রেজিস্ট্রেশন করবেন বুঝতে পারছেন না। চিন্তার কোন কারণ নেই। কিভাবে আপনি করনার ভ্যাকসিন অথবা টিকার জন্য নিবন্ধন করবেন। কবে থেকে করতে পারবেন তার বিস্তারিত বিবরণ এখানে চিত্র সহকারে দেখানো হয়েছে।

বর্তমানে যাদের বয়স ২৫ বছর বা তার বেশী সেই সমস্ত সকল শ্রেণী পেশার নাগরিকগণ এই করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধনের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন।

করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন করতে কোন ফি লাগবেনা। অর্থাৎ বিনামূল্যেই আপনি ভ্যাকসিন গ্রহণের জন্য নিবন্ধন সম্পন্ন করতে পারবেন। সফলভাবে নিবন্ধন শেষ করলে কোন একটি নির্দিষ্ট দিনে আপনার ফোনে SMS এর মাধ্যমে টিকা প্রদানের স্থান ও তারিখ জানিয়ে দেয়া হবে।

SMS আসার পর পুনরায় ঐ ওয়েবসাইট হতে আপনার নামের টিকার কার্ডটি ডাউনলোড করে আপনার NID বা জাতীয় পরিচয়পত্র সহ যেতে হবে টিকাদান কেন্দ্রে। ওয়েবসাইট হতে কিভাবে টিকার কার্ড সংগ্রহ বা ডাউনলোড করবেন তা পর্যায়ক্রমে নিচে দেখানো হয়েছে। 

করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন এর প্রক্রিয়াটি খুবই সহজ। মাত্র কয়েকটি ধাপ অনুসরণ করেই আপনি নিবন্ধনটি সম্পন্ন করতে পারবেন। আপনার NID কার্ড এবং আপনার নিজের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন এই দুটো জিনিস হাতের কাছে নিয়ে নিবন্ধন করতে বসুন। কারন করনার ভ্যাকসিন নিবন্ধনের জন্য আপনার দরকার পড়বে আপনার NID নম্বর, আপনার নাম, ঠিকানা, বয়স, পেশা, শারীরিক অবস্থা এবং ফোন নম্বর।

প্রথমে আপনাকে আপনার পেশার ধরন অথবা পেশা বাছাই করতে হবে। অর্থাৎ আপনি কোন শ্রেণীর ব্যক্তি বা নাগরিক সেটা নির্বাচন করতে হবে। তারপর পর্যায়ক্রমে পরবর্তী অন্যান্য ধাপ যেমন- আপনার NID নম্বর এবং জন্ম তারিখ (দিন মাস বছর সহ) উল্লেখ করে পরবর্তী ধাপে যেতে হবে।

কিভাবে আপনি কোভিড-১৯ করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন করবেন তা নিম্নরুপঃ

প্রথমেই আপনাকে এর জন্য বাংলাদেশ সরকারের নির্দিষ্ট ওয়েবসাইটে যেতে হবে। ওয়েবসাইট লিঙ্কঃ https://surokkha.gov.bd অথবা বুঝতে না পারলে এখানে ক্লিক করুন। তাহলে নিচের চিত্রের ন্যায় কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের রেজিস্ট্রেশন এর জন্য নির্দিষ্ট ওয়েব সাইটটি আপনার সামনে চলে আসবে।করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন

এখন আপনি চিত্রে দেখানো তীর চিহ্নিত যে কোনো একটি লিঙ্কে ক্লিক করুন। তাহলে নিচের চিত্রের ন্যায় কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন নিবন্ধন ফর্ম নামে নতুন একটি পেইজ আপনার সামনে চলে আসবে। এই পেইজে আসার পর প্রথমেই আপনাকে আপনার পরিচয় যাচাই করতে হবে। অর্থাৎ আপনি কোন শ্রেণীর ব্যক্তি বা নাগরিক সেটা নির্বাচন করতে হবে। পরিচয় যাচাইয়ের ধরনটি আপনি ড্রপডাউন মেনু হতে নির্বাচন করুন।

করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন ফর্মের নমুনা চিত্র

তারপর আপনার জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বর এবং জন্ম তারিখ (দিন মাস বছর সহ) দেবার অপশনটি চলে আসবে। সবগুলো অপশন পূরণ করা হলে নিচে একটি ক্যাপচা (এলোমেলো সংখ্যা) দেখতে পাবেন। ক্যাপচাটি সঠিকভাবে দিতে পারলেই নিচে যাচাই করুন লেখা ট্যাবটি GREEN হয়ে যাবে এবং তখনই সেটায় ক্লিক করে পরবর্তী অপশনে যেতে পারবেন। অর্থাৎ পেইজটি নিচের দিকে আরও অপশন পূরণ করতে বলবে।

পরবর্তী অপশনে অর্থাৎ নিবন্ধনকারীর তথ্য নামে (উপরের নমুনা চিত্রে লক্ষ্য করুন) নতুন একটি অপশন আপনার সামনে চলে আসবে। এখন এই অংশে আপনাকে আপনার নাম (বাংলায় এবং ইংরেজীতে), মোবাইল নম্বর, বর্তমান শারীরিক অবস্থা, আপনার পেশা, বর্তমান ঠিকানা পূরণ করে দিতে হবে। আরও আছে আপনি কোন নিকটবর্তী কেন্দ্রে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন বা টিকা নিতে ইচ্ছুক। সেটা ড্রপ-ডাউন মেনু হতে দেখে নির্দিষ্ট করে দিন।

এভাবে একে একে সবগুলো ঘর সঠিক ভাবে পূরণ শেষে নিচের দিকে একটি চেক বক্স দেখতে পাবেন। এই চেক বক্সটি টিক চিহ্ন দিয়ে সংরক্ষণ করুন বাটনে ক্লিক করুন। সংরক্ষণ করুন বাটনে ক্লিক করার আগে সবগুলো অপশন আরেকবার মিলিয়ে নিবেন।

এই মুহূর্তে আপনি কোভিড-১৯ করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন আবেদনের শেষ পর্যায়ে অবস্থান করছেন। আপনি  সংরক্ষণ করুন বাটনে ক্লিক করার কিছুক্ষণের মধ্যেই আপনার মোবাইলে একটি OTP কোড (কয়েকটি সংখ্যা) চলে আসবে। সঠিকভাবে সেই সংখ্যাটি OTP প্রদান করুন এর ঘরে দিয়ে নিচের নিবন্ধন সম্পন্ন করুন ট্যাবে ক্লিক করুন।

তাহলে সাথে সাথে আপনাকে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন নিবন্ধন সম্পন্ন হয়েছে মর্মে বার্তা দেখাবে। তারপর কিছুদিনের মধ্যে আপনার দেয়া মোবাইল নম্বরে SMS এর মাধ্যমে করনার টিকা নেয়ার স্থান এবং তারিখ জানিয়ে দেয়া হবে। SMS আসার পর এই ওয়েব সাইট হতে আপনাকে টিকার কার্ড টি সংগ্রহ করে প্রিন্ট করতে হবে। কারন এই টিকার কার্ড এবং NID কার্ড টি নিয়েই আপনাকে টিকাদান কেন্দ্রে যেতে হবে।

ওয়েবসাইট হতে কিভাবে করনার টিকার কার্ড সংগ্রহ বা ডাউনলোড করবেনঃ

সফলভাবে করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন সম্পন্ন হলে আপনার টিকার কার্ডটি ডাউনলোড করতে হবে। এজন্য প্রথমেই আপনি করনা (কোভিড-১৯) ভ্যাকসিন গ্রহনের আবেদনের নির্দিষ্ট ওয়েবসাইট অর্থাৎ https://surokkha.gov.bd লিঙ্কে পুনরায় প্রবেশ করুন। তাহলে নিচের চিত্রের ন্যায় কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের রেজিস্ট্রেশন এর জন্য নির্দিষ্ট ওয়েব সাইটটি পুনরায় আপনার সামনে চলে আসবে।

আপনি এখানে চিত্রের ১ম অংশে তীর চিহ্নর মাধ্যমে দেখানো লিঙ্কে ক্লিক করুন। তাহলে ২য় অংশের ন্যায় একটি পেইজ আপনি দেখতে পাবেন। এখানে আপনি পূর্বের ন্যায় আপনার NID নম্বর, জন্ম তারিখ এবং মোবাইলে পাঠানো OTP দিয়ে যাচাই করুন বাটনে ক্লিক করুন।

তাহলে নিচের দিকে আপনার টিকা গ্রহনের কপিটির Image আপনার সামনে চলে আসবে। আপনি এই PDF Image টি আপনার ড্রাইভে সেভ করে নিন এবং দোকানে নিয়ে প্রিন্ট করে ফেলুন।

এভাবেই আপনার কোভিড-১৯ করনা ভ্যাকসিন নিবন্ধন আবেদনের প্রক্রিয়াটি সম্পন্ন হল। আশাকরি সবগুলো বিষয় আপনি সহজেই বুঝতে পেরেছেন। এখন পুরো প্রক্রিয়াটি দেখে দেখে দ্রুত আপনার আবেদনটি করে নিন।

আপনি নিজে আবেদন করুন এবং অন্যকেও আবেদন করতে সহায়তা করুন। কারন এই টিকা প্রত্যেকের জন্যই নেওয়া জরুরী।

পরিশেষেঃ

  • নিয়মিত সাবান দিয়ে হাত ধৌত করুন।
  • জরুরী প্রয়োজন ছাড়া বাইরে যাওয়া থেকে বিরত থাকুন।
  • বাইরে গেলে অবশ্যই মাস্ক পড়ুন এবং সামাজিক দূরত্ব মেনে চলুন।
  • বাহির থেকে এসেই পরনের কাপড় সহ আপনার ব্যাবহৃত জিনিসপত্র সেনিটাইজ (জীবাণুমুক্ত) করুন অথবা ধুয়ে ফেলুন।
  • মসজিদে গেলে অবশ্যই জায়নামাজ নিয়ে যাবেন এবং মাস্ক পড়ে থাকুন।
  • প্রতিদিন অন্তত একবার করে গরম পানির (সহনীয় মাত্রায়) গড়গড়া করুন।
  • নিয়মিত ব্যায়াম করুন।
  • নিরাপদে থাকুন, ভাল থাকুন এবং সুস্থ থাকুন।

 

 

Google search engine
পূর্ববর্তী আর্টিকেলওজন কমানোর উপায় জেনে নিন। Technic of weight loss tips
পরবর্তী আর্টিকেলকালো ত্বক ফর্সা ও চকচকে উজ্জ্বল কিভাবে করবেন তার ম্যাজিক টিপস

১টি মন্তব্য

  1. খুব সুন্দর একটা পোষ্ট। আ‌মি এটা ফ‌লো ক‌রে ক‌রে আমার নিবন্ধন টা করলাম।

একটি মন্তব্য করুন

এখানে আপনার মন্তব্য লিখুন
অনুগ্রহপূর্বক আপনার নাম লিখুন